Domain name

Domain name -ডোমেইন নেম কেমন হবে? ২০২২

Posted on March 28, 2020
Category:

বর্তমান তথ্য প্রযুক্তির যুগে ডোমেইন নেম বা Domain name তথা ওয়েবসাইট খুবই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। ওয়েবসাইটের মাধ্যমে অনলাইন ব্যাবসাও অনেক জনপ্রিয়তা পেয়েছে। আর দিন যত যাচ্ছে ততই প্রতিদিন নতুন নতুন ওয়েবসােইট আত্মপ্রকাশ করছে। এই ওয়েবসাইট করতে হলে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ দুইটি বিষয় হলো Domain name এবং Web Hosting । ডোমেইন হলো ওয়েবসাইটের নাম বা ঠিকানা আর হোস্টিং হলো আপনার ওয়েবসাইটে কী কী তথ্য ভিজিটর দেখতে পাবে সেগুলো স্টোর করে রাখা। ডোমেইন বা ওয়েবসাইটের নাম খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কারণ এই নামের মাধ্যমেই আপনার ওয়েবসাইটকে ভিজিটর দেখতে পাবে। তাই এই নামকে অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে দিতে হবে। অনেকেই ডোমেইন নেম নির্বাচন করা নিয়ে সমস্যায় পড়েন। তাদের জন্যই আজকের এই পোস্ট।

অনেকেই মনে করেন ডোমেইন মানেই ডট কম। যদিও এমনটি নয়। বিভিন্ন ধরনের ডোমেইন এক্সটেনশন আছে বা ডোমেইন নেম আছে। যেমন- .com .biz .net .org ইত্যাদি। উইকিপিডিয়াতে এ বিষয়ে দেখতে পারেন।। তবুও যেহেতু অধিকাংশ মানুষই .com কে ডোমেইন হিসেবে মনে করে তাই খুব প্রয়োজন না হলে .com-কেই প্রাধান্য দিতে হবে। যেন সহজে বানান করা যায় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। উদ্ভট কোনো ডোমেইন পছন্দ করে পাঠকে ভড়কে দেয়া নিতান্তই বোকামির পরিচয়। যতটা সম্ভব ডোমেইন ছোট রাখার চেষ্টা করতে হবে। তবে সবার আগে খেয়াল রাখতে হবে যেনো অন্য কোনো ওয়েবসাইটের ডোমেন নামের সাথে মিলে না যায়। মিলে গেলে বিভিন্ন সমস্যা হতে পারে। তার মধ্যে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ হলো এসইও এবং ভিজিটর হারানো। আপনার কী ধরনের ওয়েবসাইট হবে সেটার সাথে মিল রেখে ডোমেইন নেম নেওয়া।

ডোমেইন কেনার আগে কয়েকটি রেজিস্ট্রারের তালিকা তৈরি করুন। তারপর তাদের সাথে যোগাযোগ করুন। সবাইকে জিজ্ঞাসা করুন ডোমেইনের ফুল কন্ট্রোল প্রদান করে কি না। ফুল কন্ট্রোল ছাড়া ভুলেও ডোমেইন কিনবেন না।

ডোমেইনের দামের ব্যাপারে চিন্তা করুন। সাধারণত ১০০০-১৩০০ টাকার মধ্যে ডোমেইনের দাম হয়ে থাকে। অনেকেই ২০০-৪০০ টাকায় ডোমেইন অফার করে। এদের পরিহার করুন। কারন ICANN ডোমেইন নেম নিয়ন্ত্রণকারী প্রতিষ্ঠান। তাদের ফি ১৮ সেন্ট আর .com এবং .net verisign এর মাধ্যমে রেজিষ্ট্রেশন করতে হয়। এদের মূল্য ৮০০ টাকার উপরে। কম দামে ডোমেইন কিনে পরে প্রতারিত হওয়ার সম্ভবনা খুবই বেশি। যেমন- রিনিউ করার সময় আপনার কাছ থেকে বেশি টাকা দাবী করা হতে পারে। অথবা সাইট জনপ্রিয় হলে ডোমেইনটি হাইজেক করা হতে পারে।

আপনি আরও জানতে পারেন

ডোমেইন এবং হোস্টিং কীভাবে কাজ করে?

phone-handsetearthcrossmenulist linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram